1. [email protected] : Nirob Ahmed : Nirob Ahmed
  2. [email protected] : Nur Mohammad : Nur Mohammad
কাতার বিশ্বকাপ টিকিট পেলো ২০ দল, বাকি ১২ দল কারা হতে পারে
বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩:৪৫ অপরাহ্ন

কাতার বিশ্বকাপ টিকিট পেলো ২০ দল, বাকি ১২ দল কারা হতে পারে

  • সময় : সোমবার, ২৮ মার্চ, ২০২২
  • ৬৬ ০ পঠিত
ব্রাজিল

সেই ২০১৯ সালের ৬ জুন শুরু হয়েছে ২০২২ কাতার বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব। এশিয়ান অঞ্চলের দুই পুঁচকে দল মঙ্গোলিয়া ও ব্রুনেই দারুসসালামের ম্যাচের মধ্য দিয়ে মাঠে গড়ানো বাছাইপর্ব প্রায় তিন বছর আর হাজারো ম্যাচের পরও এখনো শেষ হয়নি। তবে একেবারে শেষ পর্যায়ে চলে এসেছে। বিশ্বকাপের মূল পর্বে সুযোগ পাবে ৩২টি দল, এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপ নিশ্চিত হয়েছে ২০ দলের। আরও ১২টি দল জায়গা করে নেওয়ার অপেক্ষায়।

আর তিন দিন বাকি থাকা এই মার্চ মাস শেষ হতে হতেই আরও নয়টি দলের জায়গা পাকা হয়ে যাবে। বাকি থাকবে তিনটি দল। আন্তমহাদেশীয় প্লে-অফ আর স্থগিত হয়ে থাকা উয়েফার ম্যাচ থেকে সেই তিন দল নিশ্চিত হবে জুনে। তবে তার আগে আগামী ১ এপ্রিলই হয়ে যাবে বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের ড্র।

এরই মধ্যে ইতালি বিশ্বকাপ থেকে বাদ পড়ে গেছে। ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, জার্মানি, স্পেন, ফ্রান্সের মতো দলগুলোর বিশ্বকাপে জায়গা নিশ্চিত হয়ে গেছে। ইতালি বাদ পড়ায় পর্তুগালের এখন শুধু মেসিডোনিয়ার বাধা পার করলেই বিশ্বকাপে জায়গা নিশ্চিত হয়ে যাবে। মানের সেনেগাল বনাম সালাহর মিসরের লড়াইও রোমাঞ্চ জাগাচ্ছে।

একনজরে দেখে নেওয়া যাক বিশাল এই মহাযজ্ঞ শেষে এখন পর্যন্ত কারা বিশ্বকাপে জায়গা পেল, কারা এখনো জায়গা করে নিতে পারে—

জায়গা নিশ্চিত যে ২০ দলের কাতার (স্বাগতিক), জার্মানি, ডেনমার্ক, ব্রাজিল, বেলজিয়াম, ফ্রান্স, ক্রোয়েশিয়া, স্পেন, সার্বিয়া, ইংল্যান্ড, সুইজারল্যান্ড, নেদারল্যান্ডস, আর্জেন্টিনা, ইরান, দক্ষিণ কোরিয়া, সৌদি আরব, জাপান, ইকুয়েডর, উরুগুয়ে ও কানাডা।

কোন মহাদেশে কী অবস্থা ইউরোপ (উয়েফা) ৫৫টি দেশ উয়েফার অন্তর্ভুক্ত১ এ অঞ্চলের বাছাইপর্ব শুরু হয়েছে ২০২১ সালের মার্চে। এখান থেকে জায়গা পাবে ১৩টি দল। এর মধ্যে গ্রুপ পর্ব শেষেই ১০ গ্রুপের বিজয়ী ১০ দল জায়গা করে নিয়েছে। বাকি ৩টি দল যাবে প্লে-অফ থেকে।

সেই প্লে-অফের সমীকরণও অনেক প্যাঁচানো বটে। ১০ গ্রুপের ১০ রানার্সআপের সঙ্গে দুটি দল এসেছে ২০২০-২১ উয়েফা নেশনস লিগ থেকে, যারা নেশনস লিগে গ্রুপসেরা হলেও বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে নিজেদের গ্রুপে সেরা দুইয়ে থাকতে পারেনি। অস্ট্রিয়া ও চেক প্রজাতন্ত্র সেভাবে সুযোগ পেয়েছে প্লে–অফে।

সব মিলিয়ে ১২টি দলকে তিনটি আলাদা গ্রুপে (উয়েফার কেতাবি ভাষায় তিনটি পথে) ভাগ করা হয়েছে। প্রতি পথে চারটি দল দুটি সেমিফাইনালে খেলবে, সেখানে বিজয়ী দল খেলবে ফাইনালে।

অবশ্য রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধও এই প্লে-অফে প্রভাব ফেলেছে। ইউক্রেনে হামলা চালানোয় রাশিয়াকে দমনের চেষ্টা হিসেবে রাশিয়ার ফুটবল দলকে বাছাইপর্ব থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে, প্লে-অফে তারা পড়েছিল পোল্যান্ডের বিপক্ষে। রাশিয়া বাদ পড়ায় পোল্যান্ড ‘ওয়াকওভার’ পেয়ে প্লে-অফের ফাইনালে উঠে গেছে। ওদিকে ইউক্রেনের সঙ্গে স্কটল্যান্ডের প্লে-অফের ম্যাচ আপাতত স্থগিত আছে, সেটি হবে জুনে।

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর পর্তুগাল প্লে-অফে ইতালির সঙ্গে একই ‘পথে’ পড়েছিল, কিন্তু মেসিডোনিয়ার কাছে অবিশ্বাস্যভাবে হেরে ইতালি টানা দ্বিতীয় বিশ্বকাপে জায়গা করে নিতে ব্যর্থ হওয়ায় রোনালদোদের জন্য এখন হয়তো কাজটা আরেকটু সহজ হয়ে গেছে।

পথ এ সেমিফাইনাল স্কটল্যান্ড-ইউক্রেন (স্থগিত) ওয়েলস ২: ১ অস্ট্রিয়া জুনে ফাইনাল, সেখানে গ্যারেথ বেলের ওয়েলস হবে ‘স্বাগতিক’। ফাইনালে জয়ী দল যাবে বিশ্বকাপে।

পথ বি সেমিফাইনাল রাশিয়া-পোল্যান্ড (পোল্যান্ড ওয়াকওভার পেয়ে ফাইনালে) সুইডেন ১: ০ চেক প্রজাতন্ত্র আগামীকাল বাংলাদেশ সময় রাত ১২টা ৪৫ মিনিটে হবে ফাইনাল, সেখানে স্বাগতিক পোল্যান্ড।

পথ সি সেমিফাইনালে ইতালি ০: ১ উত্তর মেসিডোনিয়া পর্তুগাল ৩: ১ তুরস্ক আগামীকাল বাংলাদেশ সময় রাত ১২টা ৪৫ মিনিটে ফাইনাল, পর্তুগালের এস্তাদিও দো দ্রাগাওয়ে।

দক্ষিণ আমেরিকা (কনমেবল) চার দল সরাসরি যাবে বিশ্বকাপে, পঞ্চম দল প্লে-অফ খেলবে এশিয়ান অঞ্চল থেকে প্লে-অফে জায়গা পাওয়া দলের সঙ্গে।

বিশ্বকাপে জায়গা পেয়েছে: ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, ইকুয়েডর, উরুগুয়ে। পঞ্চম হওয়ার সম্ভাবনা: পেরু, কলম্বিয়া, চিলি।

গত কয়েকটি বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের মতো এবারও ১০ দলের প্রত্যেকে একে অন্যের সঙ্গে হোম-অ্যাওয়ে ভিত্তিতে খেলেছে। প্রথম চার দল বিশ্বকাপে জায়গা পেত, সে চার দল এরই মধ্যে নিশ্চিত হয়ে গেছে। প্রথম দল হিসেবে ২০২১ সালের ১১ নভেম্বর জায়গা নিশ্চিত করেছে ব্রাজিল, তার পাঁচ দিন পর আর্জেন্টিনা। ইকুয়েডর ও উরুগুয়ের জায়গা নিশ্চিত হয়েছে গত সপ্তাহে। বাছাইপর্বে প্রতিটি দলের ম্যাচ বাকি আছে আর একটি করে (আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের দুটি, যেহেতু গত সেপ্টেম্বরে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা ম্যাচটি বাতিল হয়েছে)।

ম্যাচ ডে বাকি: মার্চ ২৯, ২০২২ উত্তর আমেরিকা, মধ্য আমেরিকা ও ক্যারিবিয়ান (কনক্যাকাফ)

তিনটি দল সরাসরি সুযোগ পাবে বিশ্বকাপে, একটি দল প্লে-অফ খেলবে ওশেনিয়া অঞ্চলের প্লে-অফে সুযোগ পাওয়া দলের বিপক্ষে। বিশ্বকাপে জায়গা পেয়েছে: কানাডা।

৩৫টি দেশের কনক্যাকাফ অঞ্চলের বেশির ভাগ দলই বিশ্ব ফুটবলে নিচের সারির। এবার বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে তাই বদল এনেছে কনক্যাকাফ। প্রথম রাউন্ডে সে অঞ্চলের র‍্যাঙ্কিংয়ের হিসাবে ৬ থেকে ৩৫ নম্বরে থাকা ৩০ দল ৬টি গ্রুপে ভাগ হয়ে খেলেছে। প্রতি দল গ্রুপের অন্য চার দলের সঙ্গে একবার করেই খেলেছে।

সেখান থেকে ছয় গ্রুপ সেরা দল দ্বিতীয় রাউন্ডে আবার নিজেদের মধ্যে ‘হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে’ ভিত্তিতে খেলেছে, জয়ী তিন দল—এল সালভাদর, কানাডা ও পানামা পরের রাউন্ডে খেলেছে। ওই অঞ্চলের র‍্যাঙ্কিংয়ে ১ থেকে ৫ নম্বরে থাকা দল—কোস্টারিকা, হন্ডুরাস, জ্যামাইকা, মেক্সিকো ও যুক্তরাষ্ট্র এই রাউন্ড থেকে বাছাইপর্ব শুরু করেছে।

আট দল হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে একে অন্যের সঙ্গে খেলেছে। সব মিলিয়ে ১৪ ম্যাচ শেষে প্রথম তিন দল সরাসরি বিশ্বকাপে যাওয়ার কথা, আজ জ্যামাইকাকে ৪-০ গোলে হারিয়ে সেরা তিনে থাকা নিশ্চিত হয়েছে কানাডার।

আর একটি ম্যাচ ডে বাকি: ৩০ মার্চ। পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে তো কানাডাই, যথাক্রমে ২ ও ৩ নম্বরে থাকা যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকোর (দুই দলেরই পয়েন্ট ২৫, গোল–ব্যবধানে এগিয়ে যুক্তরাষ্ট্র) বিশ্বকাপে যাওয়াও অনেকটা নিশ্চিত।

যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাচ ২২ পয়েন্ট নিয়ে চারে থাকা কোস্টারিকার সঙ্গে, কিন্তু তিনে থাকা মেক্সিকোকে পেরোতে হলে কোস্টারিকাকে তো যুক্তরাষ্ট্রকে হারাতেই হবে, পাশাপাশি আশায় থাকতে হবে যাতে মেক্সিকো হেরে যায় তালিকার ৬ নম্বরে থাকা এল সালভাদরের কাছে। তা-ও মেক্সিকোর হার আর কোস্টারিকার জয় এমন ব্যবধানে হতে হবে, যাতে মেক্সিকোর সঙ্গে তাদের গোলের ব্যবধানের হিসাবে ৪ গোলের (মেক্সিকোর গোল ব্যবধান +৭, কোস্টারিকার +৩) হিসাবটা চুকেবুকে যায়।

আফ্রিকা ৫৪টি দল আছে আফ্রিকান অঞ্চলে, এর মধ্যে ৫টি দল সরাসরি সুযোগ পায় বিশ্বকাপে। কোনো আন্তমহাদেশীয় প্লে-অফের ঝামেলা নেই।

কয়েক ধাপের বাছাইপর্বের প্রথম রাউন্ডে দুই লেগের প্লে-অফ খেলেছে র‍্যাঙ্কিংয়ের নিচের দিকের ২৮ দল। সেখান থেকে ১৪ জয়ী দলের সঙ্গে যোগ হয়েছে র‍্যাঙ্কিংয়ের ওপরের দিকের ২৬ দল। ৪০ দলকে চার দলের ১০টি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে, সেখান থেকে গ্রুপসেরা ১০ দল উঠেছে চূড়ান্ত পর্বে।

২০২১ সালের সেপ্টেম্বর থেকে নভেম্বর—মাত্র ১১ সপ্তাহের মধ্যে শেষ হওয়া গ্রুপ পর্বে জয়ী ১০ দল: আলজেরিয়া, তিউনিসিয়া, নাইজেরিয়া, ক্যামেরুন, মালি, মিসর, ঘানা, সেনেগাল, মরক্কো, কঙ্গো। এই ১০ দল চূড়ান্ত পর্বে নিজেদের মধ্যে প্লে-অফ খেলছে, জয়ী পাঁচ দল যাবে বিশ্বকাপে।

প্লে-অফের সবচেয়ে আকর্ষণীয় দিক এই যে সাদিও মানের সেনেগাল ও মোহামেদ সালাহর মিসর পড়েছে একে অন্যের বিপক্ষে। কদিন আগে আফ্রিকান নেশনস কাপের ফাইনালেও মুখোমুখি হয়েছিল লিভারপুলের দুই তারকার দল, সেখানে জিতেছিল সেনেগাল। এবার অবশ্য প্রথম রাউন্ডে জিতেছে মিসর।

আগামীকাল দ্বিতীয় লেগ। তার আগে প্লে-অফের প্রথম রাউন্ডের ফলগুলো দেখে নিন:

ক্যামেরুন ০: ১ আলজেরিয়া

কঙ্গো ১: ১ মরক্কো

মিসর ১: ০ সেনেগাল

ঘানা ০: ০ নাইজেরিয়া

মালি ০: ১ তিউনিসিয়া

* প্রথমে প্রথম ম্যাচের স্বাগতিক দলের নাম

এশিয়া চারটি দল সরাসরি যাবে বিশ্বকাপে, পঞ্চম দলটি প্লে-অফ খেলবে দক্ষিণ আমেরিকান অঞ্চলের প্লে-অফে ওঠা দেশের সঙ্গে। এরই মধ্যে বিশ্বকাপে জায়গা নিশ্চিত: ইরান, দক্ষিণ কোরিয়া, সৌদি আরব ও জাপান।

তিন রাউন্ডের বাছাইপর্বে প্রথমে র‍্যাঙ্কিংয়ের নিচের দিকের ১২ দল (বাংলাদেশ এই রাউন্ডে খেলেছে) নিজেদের মধ্যে প্লে-অফ খেলেছে। জয়ী ৬ দলের (বাংলাদেশ এই ছয় দলের একটি) সঙ্গে যোগ হয়েছে র‍্যাঙ্কিংয়ের ওপরের দিকের ৩৪ দল। ৪০ দলকে পাঁচ দলের আটটি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে, এই গ্রুপ পর্ব আবার ২০২৩ এশিয়ান কাপের বাছাইপর্ব হিসেবেও কাজ করেছে, যে কারণে এই বাছাইপর্বে খেলেছে এবারের বিশ্বকাপের স্বাগতিক কাতারও।

দ্বিতীয় রাউন্ডে আট গ্রুপ সেরা দলের একটি ছিল কাতার। কিন্তু বিশ্বকাপ বাছাইয়ের তৃতীয় রাউন্ড আর এশিয়ান কাপের বাছাইপর্বের অংশ নয় বলে এই রাউন্ডে কাতারকে বাদ দেওয়া হয়েছে। গ্রুপসেরা বাকি সাত দলের সঙ্গে সেরা পাঁচ রানার্সআপ দল উঠেছে তৃতীয় রাউন্ডে।

এই দলগুলোকে আবার ছয় দলের দুটি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে। দুই গ্রুপের সেরা ও রানার্সআপ দল যাবে বিশ্বকাপে। এ বছরের জানুয়ারিতে ইরান এই অঞ্চল থেকে সবার আগে বিশ্বকাপে যাওয়া নিশ্চিত করেছে, এরপর দক্ষিণ কোরিয়া। গ্রুপ ‘বি’ থেকে উঠেছে সৌদি আরব ও জাপান।

ম্যাচ ডে বাকি আর একটি: ২৯ মার্চ ২০২২। এই দিনের শেষে দুই গ্রুপের তিন নম্বরে থাকা দল আবার নিজেদের মধ্যে প্লে-অফ খেলবে। সেখানে জয়ী দল আন্তমহাদেশীয় প্লে-অফ খেলবে লাতিন অঞ্চলের দলের সঙ্গে। ‘বি’ গ্রুপের তিন নম্বরে থাকা নিশ্চিত অস্ট্রেলিয়ার। ‘এ’ গ্রুপে সেই জায়গার জন্য শেষ দিনে লড়াই হবে সংযুক্ত আরব আমিরাত, ইরাক ও লেবাননের মধ্যে।

কোনো দলই সরাসরি বিশ্বকাপে সুযোগ পায় না। সেরা দলটি আন্তমহাদেশীয় প্লে-অফ খেলবে কনক্যাকাফ অঞ্চলের প্লে-অফে খেলা দলের সঙ্গে। তিন রাউন্ডের বাছাইপর্বের শেষে আগামী বুধবার প্লে-অফের ফাইনালে লড়বে নিউজিল্যান্ড ও সলোমন আইল্যান্ড

দুটি ম্যাচই হবে কাতারে, আগামী ১৩ ও ১৪ জুন। অর্থাৎ এই দুটি ম্যাচ থেকে জয়ী দুই দল আর উয়েফা অঞ্চলের স্থগিত হয়ে থাকা ম্যাচ থেকে জয়ী দল—এই তিন দল নিশ্চিত হবে জুনে। বাকি ২৯টির মধ্যে ২০টি তো নিশ্চিতই, বাকি ৯ দল কারা, তা জানতে আগামী দুই দিনে চোখ রাখুন বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে।

এখান থেকে শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

এই জাতীয় আরে খবর
© All rights reserved © 2021 @CTnews Sports
Design CTnews Sports